brandbazaar globaire air conditioner
ব্রেকিং নিউজঃ

দোহারের জয়পাড়ার মুল সড়কটির যানজট নিরসনের উদ্যোগ নেই প্রশাসনের।

দোহারের জয়পাড়ার মুল সড়কটির যানজট নিরসনের উদ্যোগ নেই প্রশাসনের।
epsoon tv 1

মাহবুবুর রহমান টিপু,দোহার)ঢাকা)প্রতিনিধি:

দোহার উপজেলার প্রানকেন্দ্র জয়পাড়া সদরের মুল সড়কটির যানজট নিরসনের উদ্যোগ নেই প্রশাসনের এমন অভিযোগ স্থানীয়দের।
সরেজমিনে দেখা যায়,উপজেলা সদরের প্রানকেন্দ্র উপজেলা পরিষদ,দোহার পৌরসভা,দোহার থানা,উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে,উপজেলা ভুমি অফিস,সাব-রেজিষ্ট্রি অফিস,পাইলট মডেল স্কুল এন্ড কলেজ,জয়পাড়া কলেজ,টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ,অর্ধশতাধিক ব্যাংক-বীমা,এনজিওসহ অনেক জনগুরুত্বপূর্ন কার্যালয় রয়েছে।এ সকল প্রতিষ্ঠানে সেবা নিতে আসা মানুষগুলো চলাচলের ফলে সবসময়ই ভীড় লেগে থাকে।আর সেই ব্যস্ততম সড়কে ব্যাটারী চালিত অটোরিক্সা,সিএনজি ও হোন্ডা চালকরা আইনের কোন প্রকার তোয়াক্কা না করেই যেখানে সেখানে তােিদও যানবাহন রাখছে।এছাড়াও বছরের পর বছর ধরে দোহার উপজেলার জয়পাড়া কলেজের সামনের রাস্তা দখল করে অবৈধ সিএনজি স্ট্যান্ড গড়ে তুলেছে। এরা সাধারনত রাস্তার উপর গাড়ি পার্কিং ও দাড় করিয়ে যাত্রী উঠানামা করার ফলে প্রতিনিয়ত বাড়ছে যানজট ও জনদুর্ভোগ। কখনো যানজটের মাত্রা এতটাই থাকে যে,টেকনিক্যাল স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে উপজেলার রতন চত্বর হয়ে– জয়পাড়া ব্রিজ ও করম আলীর মোড় পর্যন্ত কৃত্রিমভাবে অচল হয়ে পড়ে রাস্তাঘাট। অথচ পৌরসভার অর্থায়নে উপজেলার রতন চত্তরে প্রায় পাচঁ শতাধিক যানবাহনের নির্ধারিত গাড়ী পার্কিংয়ের ব্যবস্থা করেছিলো দোহার পৌরসভা। কিন্তু প্রভাবশালীদের দখলে রয়েছে ষ্ট্যান্ড।ষ্টান্ডের পরিবর্তে সেখানে রাখা হচ্ছে জয়পাড়া পরিবহনের বাস ও কাচাঁ হাট-বাজার।
এ বিষয়ে জয়পাড়া কলেজ এবং টেকনিক্যান স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে জানা যায়, প্রতিদিনই কলেজে প্রবেশ করতে নানা ভোগান্তিতে পরতে হয়। এছাড়াও কলেজ শুরু ও ছুটির সময়ে শিক্ষার্থীরা দলবেধে একসাথে বের হতে পারেন না।কেননা রাস্তার উপর এলোপাথারী যানবাহনের কারনে শিক্ষার্থীরা চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে বলে জানান।

এ বিষয়ে জয়পাড়া কলেজের একাধিক শিক্ষক নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তারা জানান,কলেজের সামনে এমন ষ্ট্যান্ডকে অনেকেই সুশানের অভাব রয়েছে বলে জানান। এই রাস্তা দিয়ে যখন কোন ভিআইপি যাতায়াত করে তখন পুলিশ প্রশাসন ক্ষনিকের জন্য রাস্তা যানজট মুক্ত রাখেন।কিছুক্ষন পর আবার সেই পূর্বের ন্যায় ফিরে আসেন। তারা আরোও জানান, দোহার পৌরসভার অবৈধ ষ্ট্যান্ড উচ্ছেদের দায়িত্ব থাকলেও পৌরসভার এ ধরনের কোন উদ্যোগ চোখে পড়েনি। দোহার পৌরসভা দায়িত্ব নিচ্ছে না বিধায় উপজেলা প্রশাসনও কোন উদ্যোগ নেয় না। এছাড়াও জয়পাড়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ কর্তৃপক্ষ সিএনজি ষ্ট্যান্ড সরানোর জন্য কোন পদক্ষেপ গ্রহন করেনি বলে জানান।

এ বিষয়ে দোহার পৌরসভার মেয়র আলহাজ আব্দুর রহিম মিয়া জানান, নতুন সড়ক নিরাপত্তা আইন কার্যকর হলেও এখনো আমরা কোন অভিযান চালাইনি। নতুন সড়ক নিরাপত্তা আইনে রাস্তার উপর গাড়ী পার্কিংয়ের দায়ে ৫ হাজার টাকা জরিমানার বিধান রাখা হয়েছে। এ ব্যাপারে সবাইকে সমন্বয়কে করে জয়পাড়া থেকে যানজট নিরসনের উদ্যোগ নেওয়া হবে।

epsoon tv 1

Related posts

body banner camera