খুলনার দাকোপে যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক যুব দিবস পালন

খুলনার দাকোপে যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক যুব দিবস পালন
Content TOP

পাপ্পু সাহা দাকোপ প্রতিনিধি:-

খুলনার দাকোপ উপজেলার বাজুয়াতে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর ও ইউএসএআইডি এর খাদ্য নিরাপত্তা উন্নয়ন কার্যক্রম ‘নবযাত্রা’-এর যৌথ উদ্যোগে গত ১১ ও ১২ আগস্ট, ২০১৮ র‌্যালি, রচনা প্রতিযোগিতা ও অলোচনাসভাসহ নানা কর্মসূচীর মধ্যদিয়ে আন্তর্জাতিক যুব দিবস-২০১৮ উদ্ধসঢ়;যাপিত হয়েছে। দাকোপ উপজেলায় যুবদের সমস্যা ও সমাধানে করনীয় বিষয়ে কলেজের ছাত্র- ছাত্রী গত ১১ আগস্ট রচনা প্রতিযেগিতায় অংশগ্রহণ করেন। এরপর ১২ আগস্ট বাজুয়ার স্থানীয় সরকারের প্রতিনিধিবৃন্দ, বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষকবৃন্দ, বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার যুব নারী-পুরুষ এবং সরকারী-বেসরকারী সংস্থার প্রতিনিধিবৃন্দ সুরেন্দ্রনাথ (এসএন) ডিগ্রি কলেজ প্রাঙ্গন থেকে ব্যানার ও প্লা-কার্ডসহ বর্ণাঢ্য র‌্যালির মাধ্যমে বাজুয়া ইউনিয়নের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করেন। এরপর তারা পুনরায় কলেজ চত্বরে এসে হাজির হন। র‌্যালি শেষে কলেজ অডিটরিয়ামে উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা জনাব মাহাবুর রহমান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জনাব শ্যামল রায়, অধ্যক্ষ, এসএন ডিগ্রি কলেজ এবং মান্যবর অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জনাব উৎপল দাস, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান, বাজুয়া ইউনিয়ন পরিষদ। এছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জনাব নৃপেন্দ্রনাথ রায় স্বাস্থ্য পরিদর্শক, তন্দ্রা রায়, সভাপতি, পারিবারিক বিরোধ নিরসন, নারী ও শিশু কল্যাণ স্ট্যান্ডিং কমিটি, বাজুয়া ইউনিয়ন পরিষদ, নাছরিন মনোয়ারা, জেন্ডার অফিসার, নবযাত্রা। সভায় নবযাত্রা পকল্পের পরিচিত ও যুবদের নিয়ে পরিচালিত কার্যক্রম তুলে ধরেন জনাব আকবর হোসেন, উপজেলা কোর্ডিনেটর, নবযাত্রা প্রকল্প, সুশীলন। অলোচনা সভায় প্রধান অতিথিসহ অন্যান্য বক্তাগণ তাদের বক্তব্যে আন্তর্জাতিক যুব দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং যুবদের সঠিক পথে পরিচালিত হওয়ার আহবান জানান। প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে বলেন, “ সঠিক দিক নির্দেশনার অভাবে যুবরা আজ ভুল পথে পরিচালিত হচ্ছে। তারা মাদক, ছিনতাই এবং ইভটিজিং এর মত খারাপ কাজে লিপ্ত হচ্ছে। তাই তিনি আভিভাকদের সচেতন হয়ে সন্তান কোথায় যাচ্ছে, কাদের সাথে মিশছে তা খেয়াল রাখার অনুরোধ জানান”। ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান উৎপল দাস বলেন, “আজকের দিনে যুবরা অনৈতিক পথে পরিচালিত হচ্ছে মোবাইল ফোনের কারণে। অনেকে আবার মোবাইল ফোনের মাধ্যমে সম্পর্কে জড়িয়ে পরছে এবং পালিয়ে বিয়ে করছে”। তিনি যুবদের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে বলেন, “তোমরা যন্ত্রকে নিয়ন্ত্রণ কর, যন্ত্র যাতে তোমাকে নিয়ন্ত্রন করে খারাপ দিকে না নিয়ে যায়। তোমরা মোবাইলকে নিয়ন্ত্রণ করে একে ভাল কাজে ব্যবহার কর।” সভাপতি তাঁর বক্তব্যে বলেন, “বর্তমানে যে দেশে যত বেশি কর্মক্ষম যুব নারী-পুরুষ আছে সেই দেশ ততবেশি উন্নত। কাজেই যুবরা আমাদের অভিশাপ নয়। যথাযথ উপায়ে পরিচালিত হয়ে তারা দেশের মানব সম্পদে পরিনত হতে পারে।” উপস্থিত যুব নারী-পুরুষদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, তোমরা হতাশ হয়ে ভুলপথে পরিচালিত হবে না। তোমরা সরকারের যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরসহ বিভিন্ন দপ্তর থেকে প্রদানকৃত পশিক্ষণে অংশগ্রহণ করতে পার এবং আত্মকর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে পার। শুধু তাই না ব্যবসা শুরুর জন্য তোমরা সরকারের বিভিন্ন দপ্তর থেকে ঋণও গ্রহণ করতে পার।”

Content TOP

Related posts

Leave a Reply

body banner camera