রাস্তায় স্বামীর কপালে বন্দুক ঠেকিয়ে স্ত্রীকে ধর্ষণ

রাস্তায় স্বামীর কপালে বন্দুক ঠেকিয়ে স্ত্রীকে ধর্ষণ
bodybanner 00

Sony Rangs - Rangs electronics

গাড়ি থেকে টেনে-হিঁচড়ে বের করা হলো। এরপর স্বামী ও দেবরের কপালে পিস্তল ধরে তাকে ধর্ষণ করল দুর্বৃত্তরা। সোমবার রাতে ভারতের গুরগাঁওয়ের সেক্টর-৫৬ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। খবর: এনডিটিভি। পুলিশ জানিয়েছে, তারা এ ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে। ২২ বছর বয়সী ওই নারী পারিবারিক এক অনুষ্ঠান শেষে রাতে স্বামী-দেবরের সঙ্গে বাড়ি ফিরছিলেন। ভুক্তভোগী নারীর ভাষ্যে, অনুষ্ঠান শেষে দেবরের গাড়িতে তারা বাড়ি ফিরছিলেন। পথে সেক্টর ৫৬ এলাকায় ওই নারীর স্বামী টয়লেটের জন্য বের হন।

রাস্তায় স্বামীর কপালে বন্দুক ঠেকিয়ে স্ত্রীকে ধর্ষণ

পুলিশের কাছে অভিযোগে ভুক্তভোগী নারী জানান, হঠাৎ দুটি কার গাড়ি তাদের ঘিরে ধরে। এক পর্যায়ে চার ব্যক্তি নেমে আমরা এখানে কেন গাড়ি থামিয়েছি, তা জানতে চান।

এসিপি ও গুরগাঁও পুলিশ স্টেশনের প্রধান জনসংযোগ কর্মকর্তা মানিষ শেগাল ভুক্তভোগীর বরাত দিয়ে বলেন, এরপরই ঘটে ভয়াবহতম ঘটনা। গাড়ি থেকে ওই নারীকে টেনে-হিঁচড়ে বের করে আনা হয়। এদের মধ্যে তিনজন তার স্বামী ও দেবরের কপালে বন্দুক ধরেন। অন্যজন তাকে সবার সামনেই ধর্ষণ করেন।

দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যাওয়ার সময় ওই নারীকে ঘটনা ফাঁস করলে হত্যার হুমকিও দেয়। পরে স্বামী ও দেবরের সঙ্গে এসে তিনি থানায় অভিযোগ করেন।

পালানোর সময় দুর্বৃত্তদের একটি গাড়ির নম্বর টুকে রাখেন ওই নারীর স্বামী।

পুলিশ কর্মকর্তা মানিষ জানান, গাড়ির নম্বরের সূত্র ধরে গুরগাঁও সোহনার জোহালকা গ্রাম থেকে চারজনকে আটক করা হয়েছে।

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00