ব্রেকিং নিউজঃ

‘ব্রাজিল-জার্মানি টপ ফেবারিট’

‘ব্রাজিল-জার্মানি টপ ফেবারিট’
bodybanner 00

বিশ্বকাপের আলো কেড়েছেন। খেলেছেন সেরা খেলোয়াড়দের একজন হয়ে। এরপর এই প্রথম সমর্থক হিসেবে দেশকে উৎসাহ দেবেন। দেশের হয়ে খেলা এবং সমর্থক হয়ে দলকে উৎসাহ দেওয়ার অভিজ্ঞতা অবশ্যই আলাদা হবে। উরুগুয়ের ফরোয়ার্ড  দিয়াগো ফোরলান সেই অভিজ্ঞতার কথা নিয়ে ফিফাডটকমের মুখোমুখি হয়েছেন। কথা বলেছেন রাশিয়া বিশ্বকাপের অন্যতম ফেবারিট দল নিয়ে। তার কথার বিশেষ অংশ তুলে ধরা হলো:

প্রশ্ন: অবসরের পর এই প্রথম দর্শক হয়ে উরুগুয়ের খেলা দেখবেন। ভাবতে কেমন লাগছে?

ফোরলান: এটা কঠিন তবে এমন নয় যে হুট করেই বুঝলাম যে আমি বিশ্বকাপে খেলছি না। ব্রাজিলে ২০১৪ বিশ্বকাপের পরপরই আমি বুঝেছিলাম আমার জন্য রাশিয়ায় খেলা কঠিন হবে। উরুগুয়ের জন্য সেভাবেই শুভকামনা করবো আমি খেলার সময় যেভাবে জয় প্রার্থনা করতাম। ২০১০ বিশ্বকাপ আমার জন্য দারুণ গেছে। ওটাই যথেষ্ঠ। আমি আবার খেলার জন্য মত বদলাবো না।

প্রশ্ন: যতগুলো টুর্নামেন্ট খেলেছেন তার মধ্যে সেরা মুহূর্ত কোনটি?

ফোরলান: দক্ষিণ আফ্রিকা বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ গোল করার জন্য গোল্ডেন বুট পাওয়া। ঘানা এবং দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয় পেতে গোল করে ভূমিকা রাখা।

প্রশ্ন: জাতীয় দলের কোন কিছু কি মিস  করবেন?

ফোরলান: সত্যি বলতে না। অবসর নেওয়া আমার ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত ছিল। আমি ভেবেচিন্তেই তা নিয়েছি। আমি দেশের হয়ে ১০ বছর খেলেছি। এটাই আমার জন্য অনেক বড় অভিজ্ঞতা।

প্রশ্ন: সমর্থক হিসেবে ফোরলান কেমন হবেন। আবেগী নাকি শান্ত-শিষ্ঠ?

ফোরলান: আমি শান্ত হয়ে খেলা দেখি। উরুগুয়ে দলের প্রতি আমার আস্থা আছে। খেলোয়াড়রাও ভালো। আমার মনে হয় রাশিয়ার তারা ভালো করবে। আমি বলছিনা যে আমরা বিশ্বকাপ জিতবো তবে তারা জেতার জন্যই খেলবে।

প্রশ্ন: ইতালি, নেদারল্যান্ডস এবং চিলি এবারের রাশিয়া বিশ্বকাপে নেই। আর কোন দল কি আছে যারা না থাকায় বিস্মিত হচ্ছেন?

ফোরলান: না, অবশ্যই না। আমরা দু’বার বিশ্বকাপ জিতেছি। কোপা আমেরিকার শিরোপা ঘরে তুলেছি। অথচ উরুগুয়েও বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব উৎরাতে পারেনি। এটা অবাক হওয়ার মতো ব্যাপার না। ইতালি ২০০৬ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন। কিন্তু ২০১০ এবং ২০১৪ সালে তারা বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্ব পেরুতে পারেনি। এটাই আধুনিক ফুটবল।

প্রশ্ন: এবারের বিশ্বকাপে শিরোপার অন্যতম দাবিদার কারা?

ফোরলান: আমার মতে, দুই দল। ব্রাজিল এবং জার্মানি। ব্রাজিল খুব ভালো খেলছে। তারা দারুণ একজন কোচ পেয়েছে। নেইনার সত্যিই দারুণ ফুটবল দেখাচ্ছে। ব্রাজিল কোচ তিতে ভালো কিছু খেলোয়াড় পেয়েছেন এবং তাদের নিয়ে দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়িয়েছেন। তারা যেভাবে খেলছে ধরে রাখতে পারলে তাদের সামনে ভালো সুযোগ আছে।

প্রশ্ন: যেভাবে বলছেন, ব্রাজিল-জার্মানি ফাইনাল হলে আপনি ব্রাজিলকে সমর্থন দেবেন?

ফোরলান: অবশ্যই। কারণ তারা দক্ষিণ আমেরিকার দল। তাদের প্রতি আমার আলাদা টান আছে। আমার বাবা সাওপাওলোতে কয়েক বছর খেলেছেন। আমিও ব্রাজিলের ক্লাবে খেলেছি এবং অনেক বন্ধু আছে সেখানে আমার। আমি ব্রাজিলকে সমর্থন দেবে কারণ তারা আমাদের প্রতিবেশি দেশ। জার্মানিকে হারিয়ে ফাইনাল জিতলে সেটা হবে মধুর মুহূর্ত। তাতে তারা ২০১৪ ব্রাজিল বিশ্বকাপের দুঃখ ভুলতে পারবে।

Facebook Comments

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00