ব্রেকিং নিউজঃ

পূজার সময় খাবার পাতে

পূজার সময় খাবার পাতে
bodybanner 00

পূজার আনন্দ শুরু হয়ে গেছে। সাজপোশাকের পরই পূজার সময়ে বিশেষ নজর থাকে খাবারের দিকে। বাড়িতে তৈরি হবে নানা পদের খাবার। তেমনই কিছু খাবারের রেসিপি দিয়েছেন মণিদীপা দাশ

ছবি : সৌরভ দাশছবি : সৌরভ দাশআমড়ার চাটনি

উপকরণ: আমড়া ১২টি, চিনি ৫০০ গ্রাম, লবণ পরিমাণমতো, শুকনো মরিচ ২টি, কাঁচা মরিচ ৭–৮টি, পাঁচফোড়ন ১ চা-চামচ, ফোড়ন দিতে সামান্য তেল ও নারকেলবাটা অর্ধেকটা।

প্রণালি: প্রথমে গরম পানিতে সামান্য লবণ দিয়ে আমড়াগুলো সেদ্ধ করে নামিয়ে নিতে হবে। যাতে করে টকভাব ও কষ কেটে যায়। তারপর সামান্য তেলে পাঁচফোড়ন, শুকনো মরিচ ও নারকেল দিয়ে নেড়ে আমড়াগুলো দিয়ে দিতে হবে। পরিমাণমতো পানিতে লবণ এবং চিনি দিয়ে কাঁচা মরিচ ফেড়ে দিয়ে নামিয়ে ফ্রিজে রেখে ঠান্ডা ঠান্ডা পরিবেশন করতে হবে।

বুটের ডাল

উপকরণ: বুটের ডাল ২৫০ গ্রাম, মরিচের গুঁড়া ২ চা-চামচ, হলুদগুঁড়া ১ চা-চামচ, জিরার গুঁড়া দেড় চা-চামচ, আদাবাটা দেড় চা-চামচ, নারকেলবাটা ১ কাপ, শুকনা মরিচ ২টি, লবণ পরিমাণমতো, চিনি পরিমাণমতো, আস্ত জিরা সামান্য, কাঁচা মরিচ ৫–৬টি, ঘি ১ চা–চামচ, চিনি পরিমাণমতো, তেল ৩ টেবিল চামচ ও নারকেলকুচি সামান্য।

প্রণালি: বুটের ডাল সেদ্ধ করে আলাদা পাত্রে নামিয়ে রাখুন। এবার কড়াইতে তেল দিয়ে আস্ত জিরা, শুকনা মরিচ, নারকেল দিয়ে দিন। নারকেলের সঙ্গে সব মসলা দিয়ে, একটু কষানো হলে সেদ্ধ ডাল দিয়ে দিন। পরিমাণমতো পানি দিয়ে ডাল হয়ে এলে ঘি দিয়ে নামিয়ে নিন।

পাঁচমিশালি সবজিবড়ি

উপকরণ: আলু, পটোল, পেঁপে, মিষ্টিকুমড়া, ফুলকপি, গাজর, বরবটি ও ঝিঙা পরিমাণমতো। পাঁচফোড়ন ১ চা–চামচ, তেল ৪ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ ৬–৭টি, শুকনো মরিচ ৩টি, আদাবাটা ২ চা–চামচ, জিরাগুঁড়া ২ চা–চামচ, ডালের বড়ি আধা কাপ, হলুদ আধা চা–চামচ, মরিচের গুঁড়া সামান্য, চিনি পরিমাণমতো, ঘি ২ চা–চামচ, লবণ ও ধনেপাতা পরিমাণমতো।

প্রণালি: আগে বড়ি ভেজে তুলে রাখতে হবে। কড়াইতে তেল দিয়ে সব তরকারি একসঙ্গে দিয়ে দিতে হবে। লবণ, আদাবাটা, জিরার গুঁড়া, হলুদ–মরিচের গুঁড়া দিয়ে নেড়ে ঢেকে রাখুন। সবজি সেদ্ধ হয়ে মিশে গেলে চিনি, ঘি ও সামান্য ধনেপাতা দিয়ে নামিয়ে নিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

আচারের খিচুড়ি

উপকরণ: চিনিগুঁড়া চাল ২৫০ গ্রাম, ঘি ২ টেবিল চামচ, তেল ২ টেবিল চামচ, মসুর ডাল ১ কাপ, মুগডাল ১ কাপ, কাঁচা মরিচ ৫–৬টি, হলুদগুঁড়া আধা চা–চামচ, মরিচগুঁড়া আধা চা–চামচ, জিরার গুঁড়া ১ চা–চামচ, রসুনের আচার ২ টেবিল চামচ, পেঁয়াজকুচি ২টি ও আদাবাটা ২ টেবিল চামচ।

প্রণালি: চাল আর ডাল একসঙ্গে ধুয়ে চালনিতে পানি ঝরার জন্য রাখতে হবে (মুগডাল আগে ভেজে নিতে হবে)। এবার পাত্রে ঘি আর তেল গরম হলে পেঁয়াজকুচি ও আদাবাটা দিয়ে চাল ভেজে নিতে হবে। হয়ে গেলে গরম পানি দিন আট কাপ। প্রথমে জ্বাল বাড়িয়ে রাখবেন। তারপর আঁচ কমিয়ে দমে রেখে দেবেন। হয়ে গেলে আচার দিয়ে নামিয়ে নেবেন।

নারকেল বাদাম সন্দেশ

উপকরণ: নারকেল ২টি, পাটালি গুড় ২৫০ গ্রাম, চিনি ১৫০ গ্রাম ও বাদামগুঁড়া ১০০ গ্রাম।

প্রণালি: নারকেল কুরে দুবার বেটে নিতে হবে। কড়াইতে নারকেলের সঙ্গে চিনি ও গুড় ভালো করে মাখিয়ে চুলায় দিয়ে যতক্ষণ পর্যন্ত পাক না আসে নেড়ে যেতে হবে। নারকেল হয়ে গেলে একটা কাচের পাত্রে সামান্য ঘি লাগিয়ে নারকেল নামিয়ে নিতে হবে। এবার বরফির মতো করে কেটে নিতে হবে। বরফি করার আগে বাদামের গুঁড়ো ওপরে ছিটিয়ে দেবেন।

লুচি

উপকরণ: ময়দা ১২টি লুচির জন্য পরিমাণমতো, তেল ২ টেবিল চামচ, ঘি ৩ চা–চামচ, লবণ পরিমাণমতো ও কালোজিরা সামান্য।

প্রণালি: ময়দার সঙ্গে তেল, লবণ, ঘি, কুসুম গরম পানি দিয়ে ভালো করে ময়ান দিয়ে ৩০ মিনিট রেখে দিতে হবে। তারপর ছোট ছোট লেচি কেটে লুচির আকারে বেলে নিয়ে কড়াইতে তেল এবং ঘি গরম হওয়ায় পর লুচি ভেজে নিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।

আলুর দম

উপকরণ: বড় আলু ৪টি, পেঁয়াজ ৪টি, পাঁচফোড়ন ১ চা–চামচ, কাঁচা মরিচ ৫–৬টি, হলুদ আধা চা–চামচ, মরিচ ১ চা–চামচ, আদাবাটা ১ চা–চামচ, জিরার গুঁড়ো আধা চা–চামচ, লবণ পরিমাণমতো, চিনি পরিমাণমতো, টমেটো গ্রেট ১টি ও পেঁয়াজবাটা ২ চা–চামচ।

প্রণালি: প্রথমে আলুগুলো ধুয়ে ভেজে নিতে হবে। ভাজা তেলে পাঁচফোড়ন ও সব মসলা দিয়ে তার মধ্যে টমেটো গ্রেট, আলুসহ ভালো করে কষিয়ে সামান্য পানি দিয়ে মাখা মাখা করে নামিয়ে নিন। গরম গরম পরিবেশন করুন লুচির সঙ্গে।

Facebook Comments

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00