brandbazaar globaire air conditioner
ব্রেকিং নিউজঃ

নূর আলী ও তার স্ত্রীর জামিন

নূর আলী ও তার স্ত্রীর জামিন
epsoon tv 1

জালিয়াতি ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে করা এক মামলায় ইউনিক গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নূর আলী এবং তার স্ত্রী সেলিনা আলীকে জামিন দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান নূর জামিন আবেদনের শুনানি শেষে ওই আদেশ দেন।

এদিন জামিন শুনানিতে আসামিপক্ষে ঢাকা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি গাজী শাহ আলম বলেন, বাদীর সঙ্গে জাল জালিয়াতি বা প্রতারণার কোনো ঘটনাই ঘটেনি। এটি একটি খাস জমি। আসামি এটি বরাদ্দ নিয়ে ভবন নির্মাণ করেছেন। নিবন্ধন দেয়ার ক্ষেত্রে আইনি জটিলতা থাকায় আসামি হাইকোর্টে একটি রিট করেছেন এবং এটি এখনও চলমান। উচ্চ আদালতের আদেশ পাওয়া মাত্রই তিনি বাদীকে তার ফ্ল্যাটের নিবন্ধন করে দিবেন। উচ্চ আদালতে চলমান মামলাটি নিষ্পন্ন না হওয়ার কারণে আসামি এখনই ফ্ল্যাটটি নিবন্ধন করে দিতে পারছেন না।

শুনানিতে বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ফারুকুর রহমান আসামীগণের জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে বিচারক নূর আলী এবং তার স্ত্রী সেলিনা আলীকে জামিন দেন।

প্রসঙ্গত, সোমবার একই বিচারক উল্লেখিত আসামিদ্বয়ের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।

মামলার অভিযোগে জানা যায়, ঢাকার পরীবাগে নূর আলীর বোরাক রিয়েল এস্টেটের বানানো ইউনিক হাইটসের একটি ফ্ল্যাট কিনেন জালাল আহমেদ স্পিনিং মিল ও শাহ ফতেউল্লাহ টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডের চেয়ারম্যান সেলিম আহমেদ।

ফ্ল্যাট ক্রয় বাবদ ২ কোটি ৯২ লাখ ৮২ হাজার টাকা গ্রহণ করেন আসামিরা। ২০১৫ সালে ফ্ল্যাট কিনলেও রেজিস্ট্রেশন করে না দেয়ায় ২০১৯ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এই মামলা করেন। মামলায় সাতজনকে আসামি করা হয়।

মামলা দায়েরের পর পিবিআইকে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন। সম্প্রতি পিবিআই তদন্ত করে দুই আসামি নূর আলী ও তার স্ত্রীর বিরুদ্ধে জালিয়াতি ও প্রতারণা হয়েছে মর্মে প্রতিবেদন দাখিল করেন। এরপর গত ১৬ সেপ্টেম্বর তাদের বিরুদ্ধে সমন জারি করেন আদালত।

সমনে হাজির না হওয়ায় সোমবার এই গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। আগামী বছর ১৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে পরোয়ানা তামিলের বিষয়ে প্রতিবেদনের দিন ধার্য করা হয়েছে।


epsoon tv 1

Related posts

body banner camera