নাসিরনগরের নতুন অভিভাবককে বরণ করতে হাজারো মানুষের ঢল

নাসিরনগরের নতুন অভিভাবককে বরণ করতে হাজারো মানুষের ঢল
bodybanner 00

মোঃ আব্দুল হান্নান,নাসিরনগর, ব্রাহ্মণবাড়িয়াঃ-
জেলার নাসিরনগর উপজেলার আগামী ১৩ মার্চ সংসদ উপ-নির্বাচনে আওয়ামীলীগ থেকে মনোনয়ন পাওয়া নতুন অভিভাবক বি,এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রামকে বরন করতে রাস্তায় হাজারো মানুষের ঢল। ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ রোজ সোমবার নাসির নগরের নতুন অভিভাবক বি, এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম সকাল ৯ ঘটিকার সময় তার ঢাকা থেকে প্রাইভেটকার যোগে নিজ নির্বাচনী এলাকা ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ সংসদীয় ২৪৩ আসন নাসিরনগরের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। নতুন অভিভাবককে বরণ করতে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, কৃষকলীগ, শ্রমিক লীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ সহ বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দের সমন্বয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক নাসির উদ্দিন রানা,
নাসিরনগরের নতুন অভিভাবককে বরণ করতে হাজারো মানুষের ঢল যুগ্ন আহবায়ক অমর ভট্রাচার্য সুমন, যুবলীগ নেতা আবুল কালাম আজাদ,সাহেদ আলী মোজাম্মেল হক দানা মিয়ার নেতৃত্বে এক বিশাল মাইক্রোবাসের বহর অপর দিকে দেলায়ার আলম চৌধুরী দিলু, মিহির দেব, মোঃ জামাল উদ্দিন, মোঃ রেজা উদ্দিন আহম্মেদ লিটনের নেতৃত্বে বিশাল মোটর সাইকেলের বহর নিয়ে হাজারো জনতা হাজির হয় বিশ্বরোড মোড় হোটেল লাল শালুকের মাঠে। পরে বেলা ১২ ঘটিকার সময় নাসিরনগরের আগামী অভিভাবক বি,এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম সেখানে এসে উপস্থিত হলে শুরু হয় এক আনন্দঘন পরিবেশের। অনেকেই প্রিয় নেতাকে বরণ করে নেন ফুল দিয়ে। সেখান থেকে রওয়ানা দিলে আরো একটি বিরাট মিছিল তাদের প্রিয় নেতাকে মাধবপুর থেকে বরণ করে নেয়। বাড়ীতে গিয়ে মা বাবার কবর জিয়ারত ও দুপুরে খাবার শেষে হাজারো জনতার মিছিলের সাথে চলে আসেন নাসিরনগর। সেখানে সদর ইউনিয়ন পরিষদ হল রুমে প্রয়াত মন্ত্রী এডঃ ছায়েদুল হকের সহধর্মিনী আলহাজ দিলশাদ আরা মিনু ও তার সমর্থকদের উপস্থিতিতে দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। পরে চলে যান স্থানীয় ডাক বাংলোতে। বিকেলে নাসিরনগর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এ,টি,এম মনিরুজ্জামান সরকার ও তার সমর্থকদের সাথে দেখা করার কথা রয়েছে বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে।
১৩টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ সংসদীয় ২৪৩ আসন নাসিরনগর। এ আসনের মোট জনসংখ্যা প্রায় ৩,০৯,০১১ জন। ভোটার সংখ্যা ২ লক্ষ ৭ হাজার ৯শত ৯৭ জন। পুরুষ ভোটার ১ লক্ষ ৬ হাজার ৮ শত ৮৭ জন,নারী ভোটার ১ লক্ষ ১ হাজার ১ শত ১০ জন। সংসদ নির্বাচনে মোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৭৪টি।এর মাঝে সংখ্যালুঘু ভোটের সংখ্যা প্রায় ৩০% বলে জানা গেছে। ১৬ ডিসেম্বর ২০১৭ এ আসনের সংসদ সদস্য, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী এডঃ ছায়েদুল হক মৃত্যু বরণ করেন। ফলে আসনটি শূন্য হয়ে পড়ে। দেখা দেয় উপ নির্বাচনের সম্ভাবনা।

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00