কাপাসিয়ায় এক স্কুল ছাত্রীর পা ভেঙ্গে দিয়েছে বখাটেরা

কাপাসিয়ায় এক স্কুল ছাত্রীর পা ভেঙ্গে দিয়েছে বখাটেরা
bodybanner 00

সাগর আহামেদ মিলন গাজীপুর প্রতিনিধিঃগাজীপুর কাপাসিয়া সোহাগপুর এলাকায় বখাটেদের হামলায় এক স্কুল ছাত্রী আহত হয়েছে।
কাপাসিয়ায় এক স্কুল ছাত্রীর পা ভেঙ্গে দিয়েছে বখাটেরাবুধবার (৭ মার্চ) সকালে সোহাগপুর গ্রামের আব্দুর রশিদের মেয়ে ১০ম শ্রেণীর ছাত্রী ফাতেমা আক্তার (১৫) পায়ে হেঁটে কপালেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ে যাচ্ছিলেন।পথে কপালেশ্বর গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে বিজয় ও তার বন্ধু আমির হামজা বেপরোয়া গতিতে মোটর সাইকেল চালিয়ে ঐ ছাত্রীর উপরে উঠিয়ে দেয়।এসময় মোটর সাইকেলের ধাক্কায় ১০ম শ্রেণীর ছাত্রী পা ভেঙ্গে গুরুতর আহত হয়। আহত ওই ছাত্রীকে ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

কাপাসিয়া থানার ওসি আবু বকর সিদ্দিক জানায়, কাপাসিয়া উপজেলার কপালেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ে আসা যাওয়ার পথে স্থানীয় কিছু বখাটে যুবক দীর্ঘদিন ধরে ছাত্রীদের উত্যাক্ত করে আসছিল। ফাতেমা আক্তার সকালে স্কুলে যাচ্ছিলো পথে নামিলা আফতাব উদ্দিন মেমোরিয়াল স্কুল সংলগ্ন মতিনের দোকানে সামনে পৌঁছলে বেপরোয়াগতিতে একটি মোটর সাইকেল নিয়ে কপালেশ্বর গ্রামের রফিকুল ইসলামের বখাটে ছেলে বিজয় (১৮) ও বড়হড় গ্রামের আলমের ছেলে আমির হামজা ওই ছাত্রীর উপর ইচ্ছাকৃতভাবে তুলে দেয়। এতে ছাত্রীটি রাস্তা থেকে ছিটকে নীচে পড়ে যায় এবং তার বাম পা’ ভেঙ্গে যায়। আহত ছাত্রীর আত্ন চিৎকারে এলাকাবাসি এগিয়ে আসলে বখাটেরা মোটর সাইকেল ফেলে রেখে দৌড়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা আহত ছাত্রীকে উদ্ধার করে প্রথমে কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠায় ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে নিয়ে যায়।

কপালেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আফজাল হোসাইন বলেন, ঘটনাটি খুবই ন্যক্কারজনক। ছাত্রীরা বিদ্যালয়ে আসার পথে বখাটেরা সাপের মতো এঁকেবেঁকে মোটর সাইকেল চালাতো।ছাত্রীদের আসা যাওয়ার পথে প্রায়ই বখাটেরা তাদের বিরক্ত করে।

কাপাসিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মোঃ মাকছুদুল ইসলাম বলেন, ‘খবর পেয়ে আমিসহ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে গিয়েছি। বখাটেদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

Facebook Comments

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00