এ্যানীর বাড়িতে যুবলীগ-ছাত্রলীগের হামলা, ভাঙচুর

এ্যানীর বাড়িতে যুবলীগ-ছাত্রলীগের হামলা, ভাঙচুর
bodybanner 00

কেন্দ্রীয় বিএনপির প্রচার সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শহীদ উদ্দিন চৌধুরীর এ্যানীর বাড়িতে হামলা ও ভাঙচুর করেছে আওয়ামী লীগ। ভিডিও ফুটেজ ধারণ করার সময় দুই সাংবাদিককে পিটিয়ে ক্যামেরা ছিনিয়ে নেয় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের কর্মীরা। আহত এক সাংবাদিককে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা ৩টার দিকে আওয়ামী লীগ মিছিল নিয়ে এ্যানীর বাড়িতে এ হামলা চালায়। এ সময় এ্যানীর বসতবাড়ি বশির ভিলার দুটি দরজা ভাঙচুর করে। এ ছাড়া বসতবাড়ির সামনে একটি টিনশেড ঘর ভাঙচুর এবং আশপাশে ঝুলানো বেশ কিছু ব্যানার ফেস্টুন ছিড়ে ফেলে তারা।

ওই মিছিলে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা ছিলেন। হামলার সময় বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদলের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী এ্যানীর বাড়ির ভেতরে অবস্থান করছিলেন। এ সময় তাঁদের ধাওয়া করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক ও স্থানীয়রা জানায়, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায় ঘোষণার পর লক্ষ্মীপুরে আনন্দ মিছিল বের করে আওয়ামী লীগ। মিছিলটি লক্ষ্মীপুর শহরের উত্তর তেমুহনি থেকে শুরু করে শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। মিছিলটি একপর্যায়ে সাবেক গো হাটা রোড গেলে উত্তেজিত কিছু নেতাকর্মী এ্যানীর বাড়িতে হামলা চালায়।

এ সময় ভিডিও ফুটেজ ধারণ করার সময় মাছরাঙা টেলিভিশনের লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি শাকের মোহাম্মদ রাসেলকে পিটিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেওয়া হয়। একই সময় অনলাইন জেটিভির জেলা প্রতিনিধি মো. রুবেলকে লাঞ্ছিত করে তাঁরও ক্যামেরা ছিনিয়ে নেওয়া হয়। তাৎক্ষণিক সহকর্মীদের রক্ষায় এগিয়ে গেলে সাংবাদিক আনিস কবিরকেও লাঞ্ছিত করে ছাত্রলীগ ও যুবলীগকর্মীরা।

এ সময় পুলিশ ও জেলা যুবলীগের সভাপতি এ কে এম সালাহ উদ্দিন টিপু, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা নজরুল ইসলাম ভুলু ও জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি চৌধুরী মাহমুদুন্নবী সোহেল উত্তেজিত কর্মীদের শান্ত করার চেষ্টা করেন।

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bodybanner 00